বরযাত্রীবাহী ট্রলারে ধাক্কা, খোঁজ মেলেনি শিশু অর্পিতার

চাঁদপুরে ডাকাতিয়া নদীতে বালুবাহী ট্রলারের ধাক্কায় বর যাত্রীবাহী অপর ট্রলারের সংঘর্ষে নিখোঁজ শিশু অর্পিতার খোঁজ মেলেনি।

রোববার (২১ ফেব্রুয়ারি) রাতে এ ঘটনার পর সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) বিকেল পর্যন্ত তাকে পাওয়া যায়নি। এরমধ্যে কোস্টগার্ড ও ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল কয়েক দফা ঘটনাস্থলে নিখোঁজের সন্ধান করেছেন।

নিখোঁজ অর্পিতা দাস চরমেয়াশা গ্রামের সনজিত দাসের মেয়ে। সে এলাকার একটি স্কুলে তৃতীয় শ্রেণিতে পড়াশোনা করতো।

স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান বেলায়েত হোসেন বিল্লাল জানান, চাঁদপুর সদরের পাইকদী গ্রামের খোকন দাসের সদ্য বিদেশফেরত ছেলে নিবাস দাস (৩৮) পাশের চরমেয়াশা গ্রামের পরেশ দাসের মেয়ে কবিতা দাসের (২০) বিয়ে ছিল রোববার রাতে। রাতেই বিয়ের কাজ সেরে কনে নিয়ে ৩০ জনের একটি দল ইঞ্জিনচালিত নৌকায় বরের বাড়িতে ফিরছিলেন তারা। এসময় ডাকাতিয়া নদীতে বিপরিত থেকে বালুবাহী ট্রলার এমভি রাজমনি-৪ এর সঙ্গে ইঞ্জিনচালিত নৌকার মুখোমুখি সংর্ঘষ হয়। এতে বেশ কয়েকজন নদীতে পড়ে যান।

এই ঘটনায় অন্যরা অক্ষত অবস্থায় উদ্ধার হলেও নিখোঁজ হন আট বছরের অর্পিতা দাস। ঘটনার পর সোমবার কয়েক দফা নদীতে অনুসন্ধান চালিয়েও নিখোঁজ অর্পিতার কোনো হদিস পায়নি কোস্টগার্ড ও ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল।